পর্তুগাল-স্পেন লড়াই

ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপ শুরুর আগে ফিফা প্রীতি ম্যাচগুলোতে সবার নজর ছিল স্পেন-পর্তুগাল লড়াইয়ের ওপর। মূল আসরে মাঠে নামার আগে দুই শক্তিশালী দলের উপভোগ্য লড়াই দেখা আশায় ছিলেন ফুটবলপ্রেমীরা। মাঠের খেলায় সুন্দর ফুটবলের দেখা মিললেও, হয়নি কোনো গোল।শুক্রবার রাতে স্পেনের ঘরের মাঠ ওয়ান্ডা মেট্রোপলিটনে খেলতে গিয়ে গোলশূন্য ড্র করে ফিরেছে বর্তমান ইউরো চ্যাম্পিয়নরা। পুরো ম্যাচে আধিপত্য বিস্তার করে খেলেছে স্বাগতিক স্পেনই। বেশ কিছু সুযোগ পেলেও কাজে লাগাতে পারেননি পর্তুগালের সবচেয়ে বড় তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো।

স্পেনে এই প্রথম কোনো আন্তর্জাতিক ম্যাচে মাঠে ছিল দর্শক। আতলেতিকো মাদ্রিদের মাঠে হাজার ১৫ দর্শক দেখলেন প্রাণবন্ত লড়াই। ২৩তম মিনিটে স্বাগতিকদের জালে বল পাঠান জোসে ফন্তে। কিন্তু পাউ তরেসকে ফাউল করায় গোল দেননি রেফারি। খানিক পর সুযোগ আসে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর সামনে। তার শট যায় সরাসরি স্পেনের গোলরক্ষক বরাবর।     শুরুতে কিছুটা সংগ্রাম করা স্পেন ছন্দ খুঁজে পায় দ্বিতীয়ার্ধে। আলভারো মোরাতা ও পাবলো সারাবিয়ার ব্যর্থতায় জালের দেখা পায়নি সাবেক বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। ৫০তম মিনিটে গোলরক্ষক বরাবর দুর্বল শট নিয়ে হতাশ করেন মোরাতা। চার মিনিট পর লক্ষ্যভ্রষ্ট শট নেন জুভেন্টাসের এই স্ট্রাইকার।  ৫৮তম মিনিটে স্বাগতিকদের হতাশা বাড়ান সারাবিয়া। অনেকটা ফাঁকা জাল পেয়েও কাছ থেকে উড়িয়ে মেরে হতাশ করেন পিএসজির এই ফরোয়ার্ড। খানিক পর লক্ষ্যভ্রষ্ট হেডে পর্তুগালকে হতাশ করেন রোনালদো।শেষের দিকে গোলের জন্য দারুণ চেষ্টা করলেও সফল হয়নি স্পেন। ৮৮তম মিনিটে খুব কাছ থেকে ফেররান তরেসের শট ঠেকিয়ে ইউরো চ্যাম্পিয়নদের ত্রাতা গোলরক্ষক রুই পাত্রিসিও। যোগ করা সময়ে মোরাতার শট ব্যর্থ হয় ক্রসবারে লেগে।আগামী ১৫ জুন হাঙ্গেরির বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে ইউরোয় শিরোপা ধরে রাখার অভিযান শুরু করবে পর্তুগাল। ‘এফ’ গ্রুপে তাদের অন্য দুই প্রতিপক্ষ জার্মানি ও ফ্রান্স। এর আগে আগামী বুধবার ইসরায়েলের বিপক্ষে নিজেদের দ্বিতীয় ও শেষ প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবেন রোনালদোরা।

শেয়ার করুন